হঠাৎ ঘন কুয়াশায় ঢাকলো রাজশাহী

কয়েকদিন থেকেই রাজশাহী শহরে শীত অনুভূত হচ্ছে। সকালে পড়ছে শিশির। তবে হঠাৎ শুক্রবার (২৮ অক্টোবর) ভোরে দেখা মিলেছে ঘন কুয়াশার। সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত কুয়াশায় ঢেকে ছিল চারপাশ। তবে সকাল ৯টার দিকে কুয়াশা সরিয়ে দেয় সূর্যের ঝলমলে রোদ।

তিন দিন ধরে রাজশাহীর তাপমাত্রা কমছে। শুক্রবার ভোর ৬টায় রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা পাওয়া গেছে ১৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সকাল ৯টায় তাপমাত্রা কিছুটা বেড়ে দাঁড়ায় ২২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।

বৃহস্পতিবার দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩১ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ দিন সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয় ২১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এর আগের দিন বুধবার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয় ২১ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এ দিন সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিকে শুক্রবার সকালে ঘন কুয়াশার কারণে রাজশাহীর রাস্তায় হেডলাইট জ্বালিয়ে যানবাহন চলতে দেখা গেছে। ট্রেনও চলেছে একইভাবে। হালকা শীতের কারণে গায়ে গামছা জড়িয়ে কাজের উদ্দেশ্যে ছুটে যেতে দেখা গেছে শ্রমজীবী মানুষদের।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রহিদুল ইসলাম জাগো নিউজকে বলেন, রাজশাহীতে হঠাৎ করেই আজ ঘন কুয়াশার দেখা মিলেছে। এ কুয়াশার দৃষ্টিসীমা ছিল ২০০ মিটার। কয়েকদিন ধরেই রাজশাহীর তাপমাত্রা কমছে। রোজই ভোরে হালকা কুয়াশা পড়ছে।

এরমধ্যে মাঝারি ধরনের কুয়াশা দেখা না গেলেও শুক্রবার সকালে হঠাৎ ঘন কুয়াশায় প্রকৃতি ঢেকে যেতে দেখা গেলো। তিনি আরও বলেন, এ কুয়াশা শীতের আগমনী বার্তা। আগামী দু-একদিনের মধ্যে বৃষ্টি না হলে আবারও ঘন কুয়াশায় ঢেকে যাবে রাজশাহী। দিনের সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রার ব্যবধানও কমে আসবে।

Check Also

টানা বজ্রসহ বৃষ্টির আভাস দিলো আবহাওয়া অফিস, হতে পারে যেসব জেলায়

বাড়ছে তাপমাত্রার পারদ। চৈত্রের প্রথম দিন থেকে উত্তরাঞ্চলে গরমের প্রভাব শুরু হয়েছে কিছুটা। এরই মধ্যে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *